মূল পাতা / প্রতিদিনের চিঠি / নিজস্ব জ্ঞান দিয়ে কোন কাজ করতে পারি না

নিজস্ব জ্ঞান দিয়ে কোন কাজ করতে পারি না

আমাদের প্রতিদিনের জীবনে ঘটে নানা ঘটনা, দুর্ঘটনা। যা প্রভাব ফেলে আমাদের মনে। সেসবের সমাধান নিয়ে ‘প্রতিদিনের চিঠি’ বিভাগ। এই বিভাগে প্রতিদিনই আসছে নানা প্রশ্ন। যেগুলোর উত্তর দিচ্ছেন অধ্যাপক ডা. সালাহ্‌উদ্দিন কাউসার বিপ্লব। আমাদের আজকের প্রশ্ন পাঠিয়েছেন তুহিন চাকলদার (ছদ্মনাম) –

প্রতিদিনের চিঠি

চিঠি

সবসময় আমার মাথা ভার হয়ে থাকে। কিছু সময় বই পড়লে মাথা ভার হয়ে যায় এবং কোনকিছু মনে থাকে না। জ্ঞান বুদ্ধি এবং বিবেক বুদ্ধি কম, স্মৃতি শক্তি কম, কাজের মনোযোগ হারিয়ে ফেলি। নিজস্ব জ্ঞান দিয়ে কোন কাজ করতে পারি না। যদি কোন কাজ করি দেখা গেছে সম্পূর্ণ ভুল হয়ে গেছে, পরে তার জন্য আফসোস করতে হয়। ছোটবেলা থেকেই আমার এই সমস্যা।

উত্তর

বিষয়টি খুব স্বাভাবিক সহজ সরল মনে হলেও এটি অবশ্যই একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয় । মাথা ভার হয়ে থাকা, মনে না থাকা, কাজে মনোযোগ হারিয়ে ফেলা, এসব বিষয় একটা আর একটার সাথে জড়িত। মনে না রাখতে পারলে কাজে মনোযোগ থাকবে না, তারপর ধীরে ধীরে মাথা ভার হওয়া সহ আরো কিছু কিছু সমস্যা তৈরী হতে পারে। কিন্তু জ্ঞান বুদ্ধি কম থাকা, নিজস্ব জ্ঞান দিয়ে কাজ না করতে পারার বিষয়টি কিন্তু একটু অন্য রকম। উপরের দুই ধরনের সমস্যার জন্যই কাজের ভুল হতে পারে। তাতে আরও বেশী মন খারাপ হতে পারে। কিন্তু আপনার বিষয়ে একটা মজার কথা বলে নিই, হতে পারে আপনি সমস্যায় ভুগছেন, হতে পারে আপনার অনেক দিন থেকেই অনেক সমস্যা, কিন্তু আপনি চিঠিটা বেশ গুছিয়ে সুন্দর করেই লিখেছেন। এটাই কিন্তু একটা প্রমান যে আপনি সুন্দর করে ভাবতে পারেন। তাই আপনাকে প্রশ্ন করার দরকার- আসলেই কি আপনি গুছিয়ে কাজ করতে পারেন না, ভুল হয়ে যায়? নাকি বিষয়গুলি আপনার মনে হয়। আপনার কাছের লোকেরাই ভালো বলতে পারবেন। তবে কারণ যাই হোক আর সমস্যা যতদূরই হোক আপনাকে সেসব কারণ জানতে হবে, বের করতে হবে। যদি জ্ঞান বুদ্ধির বিষয় হয়, তবে সেটার পরিমাপ কতো, কি কারণ সেসব বের করতে হবে।

অন্য কোনো শারীরিক সমস্যা আছে কিনা সেসবও ঠিকমতো পরীক্ষা নিরীক্ষা করা দরকার। আপনি সরাসরি দেখা করনে। তার আগে যেখানেই থাকেন পারলে থাইরয়েড হরমোন, (T3, T4, TSH) এই পরীক্ষাটি করিয়ে ফেলতে পারেন। আপনার চোখের কোনো সমস্যা আছে কিনা সেটা জানাও জরুরি। কতদিন যাবত সমস্যা সেটাও দরকারি হবে। আপাতত আপনি ক্যাপসুল – প্রোলার্ট ২০ মিগ্রা, একটা করে সকালে খেতে পারেন। সব বিষয় ঠিক মতো করতে পারলে আশা করি আপনার সমস্যা কমে আসবে। ভালো থাকুন। মনের খবর অনলাই এবং প্রিন্ট ম্যাগাজিন দুটোই পড়ুুন। ধন্যবাদ।

ইতি,
প্রফেসর ডা. সালাহ্উদ্দিন কাউসার বিপ্লব
  • চেয়ারম্যান ও অধ্যাপক - মনোরোগবিদ্যা বিভাগ, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়।
  • সেকশন মেম্বার - মাস মিডিয়া এন্ড মেন্টাল হেলথ সেকশন অব 'ওয়ার্ল্ড সাইকিয়াট্রিক এসোসিয়েশন'।
  • কোঅর্ডিনেটর - সাইকিয়াট্রিক সেক্স ক্লিনিক (পিএসসি), মনোরোগবিদ্যা বিভাগ, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়।
  • সাবেক মেন্টাল স্কিল কনসাল্টেন্ট - বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্রিকেট টিম।
  • সম্পাদক - মনের খবর। চেম্বার তথ্য - ক্লিক করুন