শিশুদের মানসিক বিকাশে ইতিবাচক চিন্তার প্রয়োজন 1

শিশুদের মানসিক বিকাশে ইতিবাচক চিন্তার প্রয়োজন

শিশুরা জন্মগতভাবেই মায়ের দুধ ও নাগরিকত্বের অধিকারী হয়। অযথা চাপাপাপি করে শিশুদের বিকাশের পথে বাঁধা দেয়া ঠিক নয়। তাদের মানসিক বিকাশে সমাজের সবার ইতিবাচক চিন্তার প্রয়োজন।

শুক্রবার বিশ্ব শিশু দিবস-২০১৫ ‍উপলক্ষে জাতীয় প্রেস ক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে আত্মহত্যা প্রতিরোধমূলক সংগঠন ‘ব্রাইটার ‍টুমরো’র আয়োজিত শিশুদের বক্তব্য ও চিত্রাঙ্কণ অনুষ্ঠান ‘শিশুদের জন্য পৃথিবী’ অনুষ্ঠানে বক্তারা এসব পরামর্শের নির্দেশনা প্রদান করেন।

সহযোগী অধ্যাপক ডা. হেলাল উদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে এসময় বক্তব্য প্রদান করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের অধ্যাপক গোলাম রহমান, জয়শ্রী জামান, নিশাত মজুমদার, শিশু অর্পণ প্রমুখ। অনুষ্ঠানে চিত্রাঙ্কনসহ বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় বিজয়ী শিশুদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন অধ্যাপক গোলাম রহমান।

অধ্যাপক ড. গোলাম রহমান বলেছেন, শিশুদের নিয়ে ইতিবাচক চিন্তা করতে হবে। শিশু ও কিশোরদের বিকাশের ক্ষেত্রে সমাজের বড় ভূমিকা রয়েছে।

তিনি বলেন, টাকার পিছনে ছুটতে যেয়ে আমরা ইঁদুর দৌড়ে আছি। অনেকে শিশুদের খোঁজ রাখার সময় পান না। শিশুদের কথা শোনার সুযোগ তারা পান না। যা শিশুর মানসিক বিকাশের পথে অন্তরায়।

ডা. হেলাল উদ্দিন আহমেদ বলেন, ঢাকা মহানগরসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে খোলা জায়গা কমে গেছে। এতে শিশুর শরীর ও মন খারাপ হচ্ছে। তারা সঠিকভাবে বেড়ে উঠতে পারছে না। যা সুন্দর পৃথিবী গড়ে তোলার পথে অন্তরায়।

জাহিদ হাসান, প্রতিবেদক
মনেরখবর.কম


লক্ষ্য করুন- মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক খবর বা প্রেস রিলিজও আমাদের পাঠাতে পারেন। বৈজ্ঞানিক সেমিনার, বিশেষ ওয়ার্কশপ, সাংগঠনিক কার্যক্রমসহ মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক যে কোনো খবর পাঠাতে news@monerkhabor.com এই ইমেইলটি ব্যবহার করতে পারেন আপনারা।