শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকদের মানসিক চাপ শিক্ষার্থীদের উপর দারুণভাবে প্রভাব ফেলে 1

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকদের মানসিক চাপ শিক্ষার্থীদের উপর দারুণভাবে প্রভাব ফেলে

কর্মক্ষেত্রে মানসিক চাপ কর্মীদের মানসিক উৎকর্ষতা ব্যাহত করার পাশাপাশি কাজের মান কমিয়ে দেয়। যেহেতু মানসিক চাপ আমাদের নিত্যসঙ্গী সেহেতু মানসিক চাপকে সফলতার সাথে মানিয়ে নেয়া এবং মোকাবেলা করা সকলের জন্যই জরুরী।

‘কর্মক্ষেত্রে মানসিক স্বাস্থ্য’ শীর্ষক এক সেমিনারে আলোচকদের বক্তব্য প্রসঙ্গগুলো উঠে আসে। গত ২৩ জুলাই (রবিবার) রাজধানীর মোহাম্মদপুরস্থ বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত সেমিনারটি যৌথভাবে আয়োজন করেন ‘অ্যাথেনা’ ও বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ফার্মেসী বিভাগ।

সেমিনারটিতে মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন জাতীয় মানসিক স্বাস্থ্য ইন্সটিটিউটের সহকারী অধ্যাপক ডা. হেলাল উদ্দিন আহমেদ। তিনি বলেন, কর্মক্ষেত্রে বিষণ্ণতা ও মানসিক চাপ সামলানোর বিষয়টি যথাযথভাবে সামলানো না গেলে কর্মীদের মানসিক উৎকর্ষতা ভীষণভাবে ব্যাহত হয়। যার ফলে কর্মক্ষেত্রে অনুপস্থিতির হার বেড়ে যাওয়াসহ কাজের গুণগত মান কমে যায়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ট্রাস্টি বোর্ডের সেক্রেটারি ইঞ্জিনিয়ার গোলাম দস্তগীর বলেন, ‘মানসিক চাপ ব্যতীত জীবন কল্পনা করা যায় না। তাই মানসিক চাপ সফলতার সাথে মানিয়ে নেয়ার প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখে জীবনকে গতিশীল করতে হবে।‘

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর আনোয়ারুল হক বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকদের মানসিক চাপ শিক্ষার্থীদের উপর দারুণভাবে প্রভাব ফেলে, আর তাই এ বিষয়ে সবারই গুরুত্ব দেয়া উচিৎ। তিনি আরও বলেন, যে কোন মিশন ভিশন বাস্তবায়ন করতে হলে মানসিক চাপ সামলানোর বিষয়টি আমাদের সবাইকে শিখতে হবে।

সেমিনারে অন্যান্য আলোচকদের মধ্যে ছিলেন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ফার্মেসী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ফরিদা বেগম, মিসেস সোফিয়া হোসাইন, ফার্মাসিস্ট ও কর্পোরেট ব্যক্তিত্ব সাফায়াত মাহমুদ ও ‘অ্যাথেনা’র প্রধান নির্বাহী(সিইও) ডা. ইফতেখার আলম সিদ্দিকী (শোভন), বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ফ্যাকাল্টি মেম্বার ও শিক্ষক শিক্ষিকাবৃন্দ।

প্রতিবেদক, মনেরখবর.কম


লক্ষ্য করুন- মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক খবর বা প্রেস রিলিজও আমাদের পাঠাতে পারেন। বৈজ্ঞানিক সেমিনার, বিশেষ ওয়ার্কশপ, সাংগঠনিক কার্যক্রমসহ মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক যে কোনো খবর পাঠাতে news@www.monerkhabor.com এই ইমেইলটি ব্যবহার করতে পারেন আপনারা।