শুধু উদ্বেগজনিত রোগ নয়, বিষণ্নতাও 1

শুধু উদ্বেগজনিত রোগ নয়, বিষণ্নতাও

সমস্যা: আমি সবসময় ভয় পাই, একা একা কোথাও বের হতে পারি না। আমার বয়স ২২। আমি কোনো কাজেই মন বসাতে পারছি না। কোনো মেয়ের দিকেও আকর্ষন নেই। মনটা প্রফুল্ল থাকে না। সবসময় মাথা এবং শরীর জিম ধরে থাকে। অস্থিরতা, উদ্বেগ আমায় যেন ভর করে। ডাক্তার আমাকে oxact -20 নামে একটা ট্যাবলেট দিয়েছেন, যেটা খেলে আমার মাথার একপাশ ভার হয়ে থাকে। এখন কি আমি এই ট্যাবলেটটি খেতে পারব? ডাক্তারের ফোন নাম্বার না থাকায় যোগাযোগ করতে পারছি না। আমি গ্রামে বাস করি।

পরামর্শ: প্রশ্ন করার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। রোগের ইতিহাস থেকে মনে হচ্ছে যে, আপনার মধ্যে উদ্বেগজনিত রোগের (Anxiety Disorder) উপসর্গ আছে। যেমন অস্থিরতা, উদ্বেগ, সবসময় ভয় পাওয়া, একা একা কোথাও বের হতে না পারা ইত্যাদি। আবার আপনি লিখেছেন যে, কোনো কাজেই মন বসাতে পারছেন না, কোনো কিছুতে আকর্ষন নেই, মন খারাপ থাকে, সবসময় মাথা ও শরীর ঝিম ধরে থাকে ইত্যাদি, যা বিষন্নতা রোগের (Depressive Disorder) জন্যে হয়ে থাকে। কাজেই বলা যেতে পারে যে, আপনার উদ্বেগজনিত রোগের পাশাপাশি বিষণ্নতা রোগও আছে। তবে বর্তমানে আপনার ঘুম, খাওয়া ইত্যাদিসহ অন্য কোনো শারীরিক সমস্যা আছে কি-না, তা জানার পাশাপাশি শারীরিক পরীক্ষা-নিরীক্ষারও প্রয়োজন আছে।

আপনি TAB OXAT (20 mg) কতদিন ধরে খাচ্ছেন, তা-ও উল্লেখ করেননি। আসলে একটি ওষুধ খাওয়া শুরু করার পরও রোগের উপসর্গ কমতে তিন খেকে চার সপ্তাহ সময় লেগে যেতে পারে। অপেক্ষা না করে বার বার ওষুধ পরিবর্তন করাটাও ঠিক নয়। মাথার একপাশ ভার হয়ে থাকাটা রোগের কারণে, নাকি ওষুধের কারণে, তা-ও নির্ণয়ের প্রয়োজন আছে।

এই অবস্থায় আপনার প্রতি পরামর্শ হলো, আপনি অবশ্যই একজন মানসিক রোগ বিশেষজ্ঞের কাছে যান। কতদিন ওষুধ খেতে হবে কিংবা ওষুধ পরিবর্তনের প্রয়োজন আছে কি-না, তা তিনিই বলে দিবেন। এ রোগের চিকিৎসায় ওষুধের পাশাপাশি রিলাক্সেশন ট্রেনিংয়েরও প্রয়োজন আছে। মনোরোগ বিশেষজ্ঞ আপনার ইতিহাস ও বর্তমান অবস্থা পরীক্ষার মাধ্যমে প্র্র্রয়োজনীয় ও উপযোগী চিকিৎসা পরামর্শ দিবেন। আশা করি, প্রয়োজনীয়  চিকিৎসা নিয়ে আপনি দ্রুত সমস্যা কাটিয়ে উঠতে পারবেন। শুভ কামনা রইলো আপনার প্রতি।